Home / সংগঠন / নিজস্ব ভূমিতে গড়ে উঠবে সাংবাদিকদের স্বপ্নের ঠিকানা

নিজস্ব ভূমিতে গড়ে উঠবে সাংবাদিকদের স্বপ্নের ঠিকানা

এম কে মনির

সীতাকুণ্ডের সাংবাদিকদের দীর্ঘ দিনের কাঙ্ক্ষিত স্বপ্নের বাস্তবায়ন হতে চলেছে এবার।নিজস্ব ভূমিতে গড়ে উঠবে সীতাকুণ্ড প্রেস ক্লাব কমপ্লেক্স।প্রসারিত হবে ক্লাব। থাকবে আলাদা অতিথি কক্ষ,সেমিনার কক্ষ।সাংবাদিকদের নিজস্ব ভবনে থাকবে সবকিছু। গড়ে উঠবে আধুনিক ও মনোরম ক্লাব।সাংবাদিকদের সেই স্বপ্নের কাঙ্ক্ষিত ঠিকানাটি আর কোথাও নয় সীতাকুণ্ড উপশহরের প্রাণকেন্দ্র সীতাকুণ্ড সদরে আলিয়া মাদ্রাসা সংলগ্ন সিকিউর সিটির পাশে অবস্থিত।মূল ভূমিটি ১০ শতাংশের একটি পুকুর ধরণের জমি।যা সীতাকুণ্ড স্রাইন কমিটি সম্প্রতি সীতাকুণ্ড প্রেস ক্লাবকে লিখে দিয়েছেন।

এদিকে ৪ মে সোমবার ঐ ভূমি পরিদর্শনে আসেন সীতাকুণ্ড উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব এস এম আল মামুন। পরিদর্শন শেষে তিনি ভূমির চারপাশে গাইড ওয়াল নির্মাণের আশ্বাস দেন।এসময় সাংবাদিকরা তাকে অসংখ্য ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।পরিদর্শনকালে এস এম আল মামুন বলেন আমি যতদূর জানি আমার পিতা প্রয়াত এমপি আবুল কাশেম মাষ্টার ও তৎকালীন উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল বাকের ভূইয়্যা এই প্রেস ক্লাবের ভূমির জন্য সীতাকুণ্ড স্রাইন কমিটির কাছে জোরালো সুপারিশ করেন।স্রাইন কমিটির সভাপতি ও সম্পাদকসহ যারা প্রেস ক্লাবের ভূমি প্রদানে অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছে তাদেরকে ধন্যবাদ জানান তিনি।

এর আগে সীতাকুণ্ড প্রেসক্লাবের ভূমির দলিল উপজেলা নির্বাহী অফিসারের মাধ্যমে প্রেস ক্লাব নেতৃবৃন্দের নিকট হস্তান্তর করেন স্রাইন কমিটির সভাপতি এড.সাধনময় ভট্টাচার্য ও সহ সভাপতি এড.সুখময় ভট্টাচার্য।

সীতাকুণ্ড প্রস ক্লাবের এই ভূমি প্রাপ্তির বিষয়ে প্রেস ক্লাবের সদস্য ও দৈনিক ভোরের কাগজের সীতাকুণ্ড প্রতিনিধি খায়রুল ইসলাম বলেন,সীতাকুণ্ড প্রেস ক্লাবকে ভূমি প্রদান করে স্রাইন কমিটি যুগান্তকারী দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে।আমি স্রাইন কমিটিকে ধন্যবাদ জানাই। মুজিববর্ষে এটি প্রেস ক্লাবের জন্য এক বিরাট অর্জন।

সীতাকুণ্ড প্রেস ক্লাবের অন্য এক সিনিয়র সদস্য জাহাঙ্গীর আলম বিএসসি বলেন,নিশ্চয়ই এটি সাংবাদিকদের জন্য খুশির খবর।আমরা অত্যন্ত আনন্দিত।সাংবাদিকদের দীর্ঘ দিনের লালিত স্বপ্নের বাস্তবায়ন দেখে খুবই ভালো লাগছে।আমার সাংবাদিকতা জীবনে এটি সবচেয়ে আনন্দের খবর।

সীতাকুণ্ড প্রেস ক্লাবের আরেক সদস্য ও দৈনিক ইত্তেফাক প্রতিনিধি দিদার হোসেন টুটুল জানান,সাংবাদিকদের স্থায়ী ঠিকানা হবে এর চেয়ে বড় প্রাপ্তি আর কি হতে পারে?বাংলাদেশে কয়টি ক্লাব আছে যে তাদের নিজস্ব ভূমি রয়েছে। তিনি আরো জানান,নিজস্ব ভূমিতে গড়ে উঠবে সীতাকুণ্ড প্রেস ক্লাব। আর এই ক্লাবে সাংবাদিকরা স্বাধীনভাবে কাজ করতে পারবে,আমাদের নিজস্ব ভূমি থাকবে এটাই অনেক আনন্দের।

About admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: