Home / সহস্রধারা / কবি আতাউল হাকিম আরিফের ৫টি কবিতা

কবি আতাউল হাকিম আরিফের ৫টি কবিতা

মৃত্তিকা

আমি হেঁটে যায় বসন্তদিনে, রাজপথে-
রক্তরঙ,সারিসারি গোলাপ মৃত,
ইট পাথরের কান্না-অবিরাম,
খসে পড়ছে- মানবিক দেয়াল!
খসে পড়া দেয়ালের চোখ বেয়ে-
মৃত্তিকার অশ্রুপাত!
অশরীরি হয়ে থেকো আমার মৃত্তিকা।

বিষন্ন চাঁদে খুঁজেফিরি তোমার মুখ

গিরগিটির মতো সুরত পাল্টে যাচ্ছে তোমার
তামাসা হাটে রঙের খেলায় মেতে উঠেছো!
আমি হাঁটছি বিদগ্ধ পথ মাড়িয়ে
জানি ক্রমাগত স্বপ্নগুলোর মৃত্যুপথ এগিয়ে আসছে!
রাত্রির পেঁচাদের কর্কশ সুরে বিরহ বিষাদ খুঁজি-
বিষন্ন চাঁদের আলোয় খুঁজি তোমার মুখ।

মৃত্যু ছায়া

উপরে উঠছি, অনেকটায় উপরে
উঠছি, খেয়ে নিচ্ছি শেকড়বাঁকড়
খেয়ে ফেলছি মাটি,পোকামাকড়, বৃক্ষরাজি।
যন্ত্রের কোলাহলে-বিলুপ্ত সুরভি ছায়া
প্রকৃতির বুক ছিঁড়ে-বিহঙ্গের কান্না!
দানবের আস্ফালনে উপর থেকে ক্রমশ নিচে
নেমে আসছে মৃত্যু ছায়া।

স্মৃতিচিহ্ন

হতাশার গল্পগুলো এগিয়ে যাচ্ছ
একেকরকম ভাবে হাঁটছে,ঘুমুচ্ছে।
আমিও হাঁটি-
ঈশান কিংবা নৈঋতে।
মেঘের আড়ালে লুকিয়ে থাকা চাঁদ
পুনরায় জেগে উঠে।
জেগে উঠে অজানা প্রতিবিম্ব!
কিংবা দূরের কোনো স্মৃতি চিহ্ন।

গোরস্থান ডাকছে

একটু সামনে এগিয়ে যান,ডানে মোড় নিন
গোরস্থান দেখতে পাচ্ছেন কি?
কান ফেতে শুনুন-খুব নিরবে ডাকছে,
শুনতে পাচ্ছেন না?
তবে কী আপনার কর্ণকুহরে সিল মেরে দিয়েছে পাপ!

এইবার একটু ভাবুন!
এই সুসজ্জিত মনোরম প্রাসাদে আর কতদিন?
ডাইনিং টেবিলে সাজানো সুস্বাদু খাদ্যের সমাহার
আর কত-ই বা ভোগ করবেন?

ও আচ্ছা আপনি ক্ষমতাবান!
আপনার পেছনে অনেকেই তো অনুগ্রহ প্রার্থী!
দেখুন তো ঐ গোরস্থানে ওরা কেউ আছে কিনা?
না, কেউ নেই!

মাটির গভীরে সুনসান নিরবতায় আপনাকে ডাকছে!

About admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: